Breaking News
Home / আন্তর্জাতিক / চীনে ‘মাও বিপ্লব’ ফিরিয়ে আনছেন শি

চীনে ‘মাও বিপ্লব’ ফিরিয়ে আনছেন শি

চীনের সাবেক নেতা মাও সেতুংয়ের সামাজিক বিপ্লব ফের দেশটিতে ফিরিয়ে আনছেন প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং। সামাজিক ও অর্থনৈতিক বিপ্লবের অগ্রযাত্রাকে আরও সমৃদ্ধ করতে গ্রাম উন্নয়নের দিকে মন দিয়েছেন তিনি।

চীনের ক্ষমতাসীন কমিউনিস্ট পার্টির যুব শাখা কমিউনিস্ট ইয়ুথ লিগ (সিওয়াইএল) তাদের এক কোটি স্বেচ্ছাসেবককে গ্রামে পাঠাচ্ছে।

বিজ্ঞান ও প্রযুক্তির মাধ্যমে গ্রামকে উন্নয়নের শীর্ষে তুলতে আগামী ২০২০ সালের মধ্যে এ লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ করেছে সিওয়াইএল। চীনের রাষ্ট্র পরিচালিত সংবাদমাধ্যম গ্লোবাল টাইমসের বরাতে শুক্রবার এ খবর দিয়েছে এএফপি।

দীর্ঘ ৫৩ বছর পর আবারও মাও সেতুংয়ের সামাজিক বিপ্লবকে পুনরুজ্জীবিত করছে চীন। ১৯৬৬ থেকে ১৯৭৬ সময়কালে সামাজিক-রাজনৈতিক আন্দোলনের অংশ হিসেবে এ বিপ্লবে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন মাও।

গ্লোবাল টাইমস জানায়, যুবকরা শহুরে জীবনের প্রতি আকৃষ্ট হওয়ার আগেই তাদের গ্রামে পাঠানো হচ্ছে। এতে অনুন্নত এলাকাগুলো তাদের মেধা কাজে লাগিয়ে আরও উন্নত হবে। গ্রামাঞ্চলে আধুনিক সভ্যতারও বিকাশ হবে। কমিউনিস্ট পার্টির নথি অনুযায়ী, ২০২২ সালে মধ্যে এই কর্মসূচি বাস্তবায়ন করা হবে। শিক্ষার্থীদেরও গ্রীষ্মকালীন ছুটিতে তাদের গ্রাম এলাকায় বাস করতে হবে। তবে যুবক বাছাইকরণে কোনো বয়সকে নির্দিষ্ট করা হয়েছে কিনা তা স্পষ্ট করা হয়নি। যদিও সিওয়াইএল দলের সদস্য হতে ১৪ থেকে ২৮ বছর বয়সের শর্ত পূরণ করতে হয়।

হুনান প্রদেশের সিওয়াইএল ডেপুটি প্রধান ঝ্যাং লিনবিন বলেন, শহরের পাশের গ্রামগুলোকে আধুনিক প্রযুক্তির ছোঁয়া দিতে আমরা যুবকদের ব্যবহার করতে চাই।

মাও বিপ্লবের ঘাঁটি হিসেবে পরিচিত এলাকাগুলো এখন অতিদারিদ্র্যতার শিকার। তাই যুবকদের সেবা দেয়ার ক্ষেত্রে সংখ্যালঘু ও দারিদ্র্য এলাকাগুলোকে প্রাধান্য দেয়া হবে। কমিউনিস্ট পার্টির এই কর্মসূচি ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়েছে।

দেশটির সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে এ নিয়ে ব্যাপক বিতর্ক হচ্ছে। কারণ মাও সেতুংয়ের বিপ্লবের আলোকে যুবকদের গ্রামে পাঠিয়ে দেয়ায় শহরের বিশ্ববিদ্যালয়গুলো প্রায় ১ দশকের জন্য বন্ধ হয়ে পড়েছিল।

About dhaka crimenews

Check Also

দ্রুত মার্কিন সেনা তাড়ান: ইরাককে খামেনি

ইরাককে যত দ্রুত সম্ভব মার্কিন সেনা তাড়াতে বললেন ইরানের শীর্ষ নেতা আয়াতুল্লাহ আলি খামেনি। ইরাকের ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *