Breaking News
Home / রাজনীতি / বাবার আদর্শ থেকে দূরে আ’লীগ তাই গণফোরামে : রেজা কিবরিয়া

বাবার আদর্শ থেকে দূরে আ’লীগ তাই গণফোরামে : রেজা কিবরিয়া

স্টাফ রিপোর্টার: রফিকুল
দিনকাল রিপোর্ট : গণফোরামে আনুষ্ঠানিকভাবে যোগ দিয়েছেন সাবেক অর্থমন্ত্রী শাহ এএমএস কিবরিয়ার ছেলে ড. রেজা কিবরিয়া। গতকাল রবিবার দুপুরে মতিঝিলে গণফোরাম সভাপতি ড. কামাল হোসেনের চেম্বারে এক সংবাদ সম্মেলনে বিষয়টি নিশ্চিত করেন তিনি। : আওয়ামী লীগ ছেড়ে গণফোরামে যোগ দেয়ার বিষয়ে রেজা কিবরিয়া বলেন, বাবা শাহ এএমএস কিবরিয়ার আদর্শ থেকে আওয়ামী লীগ অনেকটাই দূরে সরে এসেছে। তাই ড. কামাল হোসেনের নেতৃত্বাধীন ঐক্যফ্রন্টে যুক্ত হয়েছি। জাতীয় ঐক্যফ্রন্ট থেকে নির্বাচন করতে চান জানিয়ে তিনি বলেন, দেশের স্বার্থে কাজ করতে চাই। এ জন্য ঐক্যফ্রন্টের হয়ে নির্বাচন করার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। : রেজা কিবরিয়া বলেন, আমি আমার আদর্শ থেকে একচুলও পিছু হটিনি। দেশের মানুষের ভোটের অধিকার রক্ষায়, গণতান্ত্রিক অধিকার রক্ষায় এবং গণমাধ্যমের স্বাধীনতা রক্ষায় ড. কামাল হোসেন যে ঐক্যের ডাক দিয়েছেন, আমি তাতে সাড়া দিয়েছি। তিনি মনে করেন, ড. কামালের নেতৃত্ব ছাড়া বাংলাদেশকে ঠিক পথে ফিরিয়ে নেয়া সম্ভব নয়। তিনি বলেন, একমাত্র ড. কামাল হোসেনই পারেন আমি যে বাংলাদেশের স্বপ্ন দেখেছি সেই স্বপ্নপূরণ করতে। বঙ্গবন্ধু সে স্বপ্ন দেখেছিলেন, সেই স্বপ্নপূরণ করার মতো ড. কামাল ছাড়া কেউ নেই। : বিএনপি ক্ষমতায় থাকার সময়ে তার বাবা কিবরিয়া খুন হন, বিএনপি সেই হত্যার বিচার করেনি; তবু কেন বিএনপি জোটে যোগ দিচ্ছেন-এমন প্রশ্নে রেজা কিবরিয়া বলেন, আমি আমার বাবার হত্যার বিচার দাবি থেকে পিছিয়ে যাইনি। বাবার হত্যায় জড়িতদের কিংবা নেপথ্যে যারা ছিলেন তাদের সঙ্গেও আমার কোনো আপস নেই। রেজা কিবরিয়া বলেন, বিএনপি ক্ষমতায় থাকাকালে আমার বাবা খুন হয়েছেন। বিএনপি বিচার করেনি। তারপর দুই বছর ক্ষমতায় ছিল বিশেষ সরকার, তারাও বিচার করতে পারল না। এরপর তো আওয়ামী লীগ টানা সাড়ে ৯ বছর ধরে ক্ষমতায়, তারা কেন কিবরিয়া হত্যার বিচার করল না- প্রশ্ন রাখেন রেজা কিবরিয়া। : :

About dhaka crimenews

Check Also

এদের মধ্যে অনেকে সংবিধান সম্পর্কেই জানে না: সোহেল রানা

দু’একজন বাদে শিল্পীরা রাজনীতিকে ছেলেখেলা বানিয়ে ফেলেছে বলে মন্তব্য করেছেন খ্যাতিমান অভিনেতা মাসুদ পারভেজ সোহেল ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *