Home / স্বাস্থ্য / পরিকল্পিত পরিবার গড়ি, মাতৃ মৃত্যুরোধ করি, এখনো প্রায় ১৮ শতাংশ মা অপুষ্টিতে ভোগেন

পরিকল্পিত পরিবার গড়ি, মাতৃ মৃত্যুরোধ করি, এখনো প্রায় ১৮ শতাংশ মা অপুষ্টিতে ভোগেন

মাহমুদ হাসান-

ঢাকা ক্রাইম নিউজঃ  স্বাস্থ্য ও পরিবার কল্যাণ প্রতিমন্ত্রী জাহিদ মালেক বলেছেন, পরিবার পরিকল্পনার উপকরণ গ্রহণের হার ৬২ থেকে ৭০ শতাংশের ওপরে নিয়ে যেতে হবে।

গর্ভবতী মায়েদের পুষ্টি নিশ্চিত করতে হবে।

এখনো প্রায় ১৮ শতাংশ মা অপুষ্টিতে ভোগেন। এতে খর্বকায় শিশুর জন্ম হচ্ছে। শিশু ও মায়েদের কাছে স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা সেবা পৌঁছে দেয়ার আহ্বান জানিয়ে আগামী শনিবার থেকে সারা দেশে শুরু হচ্ছে পরিবার কল্যাণ সেবা ও প্রচার সপ্তাহ।

এটি শেষ হবে আগামী ৪ জানুয়ারি।

এবারের সপ্তাহের প্রতিপাদ্য হচ্ছে ‘পরিকল্পিত পরিবার গড়ি, মাতৃ মৃত্যুরোধ করি’।

প্রতিমন্ত্রী সম দম্পতিদের স্বল্পমেয়াদি ও দীর্ঘমেয়াদি এবং স্থায়ী পরিবার পরিকল্পনা গ্রহণে উৎসাহী করার পাশাপাশি “ছেলে হোক, মেয়ে হোক দু’টি সন্তানই যথেষ্ট কিন্তু একটি হলে ভালো হয়” স্লোগানটি জনপ্রিয় করে তোলার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপগুলোর প্রতি আহ্বান জানিয়েছেন।

গতকাল সচিবালয়ে পরিবার কল্যাণ সেবা ও প্রচার সপ্তাহ উপলে আয়োজিত এক সংবাদ সম্মেলনে তিনি এ আহ্বান জানান। সংবাদ সম্মেলনে স্বাস্থ্য শিা ও পরিবার কল্যাণ বিভাগের সচিব ফয়েজ আহম্মদও উপস্থিত ছিলেন।

জাহিদ মালেক বলেন, মাতৃমৃত্যুর হার কমিয়ে পরিকল্পিত পরিবার গড়তে হলে প্রথমে বাল্যবিয়ে কমাতে হবে। তিনি বলেন, বাংলাদেশে গত এক দশকে মাতৃমৃত্যুর হার ৪০ শতাংশ কমেছে। তবে যানবাহনের জন্য অনেক মা হাসপাতাল কিংবা কিনিকে আসতে পারে না, এ জন্য মাতৃমৃত্যুর হার বৃদ্ধি পায়।

প্রতিমন্ত্রী বলেন, জনসংখ্যা বৃদ্ধি রোধ, মাতৃৃ ও শিশু মৃত্যু হ্রাস এবং নিরাপদ মাতৃত্ব নিশ্চিত করার উদ্দেশ্যে প্রজনন স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা সেবার উন্নয়নের লক্ষে এই সপ্তাহ পালন করা হবে।

সেবা সপ্তাহে প্রতিদিন মাঠপর্যায়ে প্রতিটি সেবা কেন্দ্রে পরিবার পরিকল্পনার বিশেষ ক্যাম্প অনুষ্ঠিত হবে এবং গর্ভবতী মায়েদের চেকআপ ও ডেলিভারি সেবা দেয়া হবে।

এ জন্য প্রয়োজনীয় ওষুধ সরবরাহ এরই মধ্যে নিশ্চিত করা হয়েছে।

About dhaka crimenews

Check Also

মেদভুঁড়ি নিয়ন্ত্রণে রাখার সঠিক ডায়েট

ডলি আক্তার।। শরীরটা এমনিতে ঠিকঠাকই আছে। মুটিয়ে যাওয়া বা অতিরিক্ত ওজনের সমস্যায় পড়তে হয়নি এখনো। ...

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *